কোন স্মার্টফোন কিনব?

মুঠোফোন কেনার আগে পরামর্শ চেয়ে সচরাচর যে প্রশ্ন করা হয় তা হলো, ‘কোন স্মার্টফোন কিনব?’। বর্তমানে স্মার্টফোনের বাজারে স্যামসাং, অ্যাপল, এইচটিসি, নকিয়া, ব্ল্যাকবেরির নতুন অনেক স্মার্টফোন রয়েছে। বাজারে বিভিন্ন ব্র্যান্ডের স্মার্টফোনের মধ্যে থেকে একটি নির্দিষ্ট মডেল বাছাই করে নেওয়া বেশ কষ্টকর। কাজের ধরন ও প্রয়োজনীয়তার কথা মাথায় রেখে স্মার্টফোন কেনা উচিত বলেই পরামর্শ দিয়েছেন প্রযুক্তি বিষয়ক ওয়েবসাইট সিনেটের প্রযুক্তি বিশ্লেষকেরা।
প্রযুক্তি বিশ্লেষকেরা জানিয়েছেন, বাজারে স্মার্টফোনের নানা রকমফের থাকায় বেছে নেওয়ার সুবিধা রয়েছে। আইফোন, অ্যান্ড্রয়েডনির্ভর স্মার্টফোন, উইন্ডোজফোন বা ব্ল্যাকবেরির অপারেটিং সিস্টেম থেকে বেছে নিতে পারেন প্রয়োজনীয় স্মার্টফোন। তবে প্রতিটি অপারেটিং সিস্টেমের কিছু সীমাবদ্ধতা রয়েছে।
সেরা স্মার্টফোন
বিশ্লেষকেদের পরামর্শ হচ্ছে বর্তমানে জনপ্রিয় স্মার্টফোন হিসেবে কিনতে পারেন আইফোন ৫, এইচটিসি ওয়ান, গ্যালাক্সি এস ফোর, নকিয়া লুমিয়া ৯২০।
কেনার আগের হিসাব নিকাশ
দেশের বাজারে অনেক ব্র্যান্ডের স্মার্টফোন পাওয়া যায়। তবে এত ব্র্যান্ডের ভিড়ে কোনটি আপনার জন্য সবচেয়ে ভালো? স্মার্টফোনের দাম বেশি হয় বলে দেখেশুনে নিশ্চিত হয়ে কেনাই ভালো। ইন্টারনেট-সুবিধার এ যুগে ইন্টারনেট থেকে কাঙিক্ষত স্মার্টফোনটির তথ্য জেনে নিয়ে তবেই বাজার থেকে তা কিনতে পারেন।
স্মার্টফোন কেনার আগে সবার আগে খোঁজ নিন এর প্রসেসর সম্পর্কে। দ্রুতগতির প্রসেসরযুক্ত স্মার্টফোন পছন্দ করুন, যাতে আপনার পছন্দের অ্যাপ্লিকেশনগুলো স্বচ্ছন্দে চালাতে পারেন। স্মার্টফোন কেনার জন্য বাজেট বেশি হলে ডুয়াল কোরের প্রসেসরযুক্ত স্মার্টফোন বেছে নিতে পারেন। প্রসেসরের পাশাপাশি বেশি ক্ষমতার র্যাম আছে কি না, তা খেয়াল করে দেখতে পারেন। দেখে নিন তথ্য ধারণের জন্য স্মার্টফোনটিতে কতটা জায়গা রয়েছে বা অতিরিক্ত কতটা মেমোরি সমর্থন করবে। খেয়াল করুন ডিসপ্লে, রেজুলেশন। এ ছাড়াও ক্যামেরা, সেন্সর, ব্লু-টুথ, ইউএসবি, জিপিইউ ক্ষমতা দেখে নিন। আপনার পছন্দের অপারেটিং সিস্টেম অনুযায়ী কিনুন স্মার্টফোনটি। কেনার সময় ব্যাটারিতে চার্জ থাকে কতটা এবং স্মার্টফোনের সাউন্ড কেমন সেটা যাচাই করুন। এ ফোন কেনার সময় সার্ভিস ও ওয়ারেন্টির বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে নিন।
দেশের বাজারে স্মার্টফোনের দাম
স্যামসাং: গ্যালাক্সি এস ফোর-৬৭,৫০০ টাকা, গ্যালাক্সি ওয়াই ডুয়োস-১৩,৯০০ টাকা, গ্যালাক্সি ওয়াই কালার প্লাস-১২,৩০০ টাকা, গ্যালাক্সি ওয়াই ইয়ং-৯,৯০০ টাকা, গ্যালাক্সি নোট টু-৬৫,৫০০ টাকা,

Previous
Next Post »

পোস্ট সম্পর্কিত সমস্যার জন্য মন্তব্য দিন।ডাউনলোড লিঙ্ক এ সমস্যা জন্য ইনবক্স করুন Aimzworld007
ConversionConversion EmoticonEmoticon

Thanks for your comment