অটোক্যাড ২০১৬,ফটোশপ প্লাগইন্স সহ আরো একটি ফটো এডিটিং সফটওয়্যার।

টিউন করেছেন : প্রবাসী

সবাইকে সালাম ও শুভেচ্ছা। প্রবাসী মানেই সফটওয়্যার আর সে সফটওয়্যার যখন কম পাওয়া যায় তখন টিউনের পরিমানও  অটোমেটিক কমে আসে।শুধুমাত্র টিউন বাড়ানোর জন্য যা ইচ্ছে তাই আপনাদের কখনোই খাওয়াতে চাইনি এবং আগামীতেও খাওয়াবো না।আজকের টিউনেও যে তেমন কিছু আছে তা কিন্তু নয়।পুরাতনকে ঘসে মেজে নতুন করে উপস্থাপন এই আর কি! :-)  কিছু পুরাতনের সঙ্গে নতুন কিছুকে যোগ করে একটা টক ঝাল মিষ্টির চাটনি বানিয়ে আপনাদের খাওয়ানো আর কি।

আজকের টিউন তাদের জন্য যারা ফটোগ্রাফী/গ্রাফিক্স ডিজাইন নিয়ে আগ্রহী তাদের জন্য।যারা কাজ করছেন বা শিখছে বা শিখতে চাইছেন তাদের জন্য।কথা বাড়াবো না।কাজ শুরু করি।

autodesk autocad 2016  (x32/x64)

পারেন বা না পারেন কিন্তু  অটোক্যাডের কাজ শিখতে আগ্রহী নন এমন মানুষ খুব কমই আছে।পিসি মানেই তো ফটোশপ,অটোক্যাড,আইডিএম,অফিস এসব।এগুলো না থাকলে যেন পিসির মান মর্যাদাই থাকে না সে কাজ পারি বা না পারি।কাজ পারে না কিন্তু এসব জিনিস পিসিতে সুন্দর করে সাজিয়ে রেখেছে এমন কোন ব্যক্তিকে যদি আপনাকে কেউ দেখাতে বলে তবে চোখ বন্ধ করে আমাকে দেখিয়ে দিবেন।অজ্ঞতা প্রকাশে লজ্জা নেই কিন্তু অজ্ঞতা সত্বেও বিজ্ঞতা দেখানোটাই লজ্জার।অন্তত আমার কাছে তাই মনে হয়।

যাইহোক এবারের অটোক্যাড ২০১৬ তে কি কি থাকছে তা বোধহয় জানাতে পারবো না কারন এখন পর্যন্ত অফিসিয়াল সাইটে ২০১৫ ভার্সন পর্যন্ত শোভা পাচ্ছে।তার মানে ২০১৬ এখনো অফিসিয়াল সাইটে এড করেনি কিংবা অফিসিয়াল রিলিজ হয়নি।।পিসির কনফিগারেশন কেমন লাগবে তাও বলতে পারছি না তবে ৬৪ এবং ৩২ বিটের নর্মাল কম্পিউটারে চলার কথা।আর যাদের গ্রাফিক্স কার্ড আছে তাদের তো কোন চিন্তাই নেই।যাইহোক  অটোক্যাড নিয়ে এত কথা বলার নেই কিংবা বিস্তারীত বলার নেই। আমি  নিজে পরীক্ষা করে তারপর আপনাদের জন্য শেয়ার করলাম।যারা আগ্রহী তারা নামিয়ে নিতে পারেন।ও হ্যাঁ বলতে ভুলে গেছি যে সমস্যার কারনে আপাতত টেকটিউনস জেড ড্রাইভস আপাতত বন্ধ আছে।আশা করছি সব সমস্যা কাটিয়ে উঠে টেকটিউনস জেড ড্রাইভস আবার আমাদের মাঝে ফিরে আসবে।আপাতত ইউজারস ক্লাউড নামে একটা ফাইল শেয়ারিং সাইটে আপলোড করেছি যা আইডিএম এ রিজিউম সহ সব ধরনের সুবিধা দেবে।প্রথমেই আসছি ৬৪ বিটেরে কথায়।এটির ডাউনলোড সাইজ ২১৬১ মেগাবাইট যা ৩ পার্টে আপলোড করা হয়েছে।প্রথম ২ পার্ট ৮০০ মেগাবাইট আর শেষেরটি ৫৬১ মেগাবাইট।শুরু হোক ডাউনলোড।

x64

ডাউনলোড পার্ট ১

ডাউনলোড পার্ট ২

ডাউনলোড পার্ট ৩

এবার আসছি ৩২ বিটের কথায়।তারা সবসময়ই একটু বাড়তি সুবিধা পান।তাদের জন্য ডাউনলোড সাইজ ১৫৪০ মেগাবাইট যা যথাক্রমে ৮০০ এবং ৭৪০ মেগাবাইটে আপলোড করা হয়েছে।

x32

ডাউনলোড পার্ট ১

ডাউনলোড পার্ট ২

যার যেটা ইচ্ছা ডাউনলোড করে  এক্সট্রাক্ট করে নিন।এবার শুরু করুন ডাউনলোড। ভালো ভাবে বুঝানোর জন্য আমাকে বেশ কিছু স্ক্রীনশট নিতে হয়েছে যাতে কোন সমস্যায় পড়তে না হয়।অবশ্য আগে যারা ফুল ভার্সন করেছেন তাদের জন্য সহজ হবে কারন নিয়ম একই।তারপরেও যারা অতীতে করেননি বা জানেন না তাদের জন্য নতুন করে আপলোড করলাম।

প্রথমেই বলে রাখছি সফটওয়্যারটি একটিভ করতে গেলে আপনার কম্পিউটারে  UAC বন্ধ করতে হবে। UAC কিভাবে বন্ধ করবেন তা জানাতে আমার পুরাতন টিউনের আশ্রয় নিলাম।সেখান থেকে কপি করে পেষ্ট করলাম। 7/8 ব্যবহারকারী তাদের ক্ষেত্রে mem patch কাজ নাও করতে পারে। তাদের UAC বন্ধ রাখতে হবে।কিভাবে বন্ধ করবেন? START >>> CONTROL PANEL >>> User Accounts and Family Safety >>> change the settings of the user account control >>> never change এবং ওকে করে বেরিয়ে আসুন।আরো সহজ করে ছবিতে দেখাচ্ছি যেন বুঝতে সুবিধা হয়।আমার কম্পিউটার ইতালিয়ান ভাষায় তাই শুধু ছবি দেখুন

আশা করছি এবার আপনাদের বুঝতে অসুবিধা হবে না।ওকে এবার UAC  বন্ধ করে শুরু করুন ইন্সটল করা। যখন (সি)রিয়াল চাইবে তখন নোট প্যাড ওপেন করে কপি করে পেষ্ট করুন।ছবি দেখুন।

এরপর বেশ কিছু সময় লাগবে কাজ শেষ হতে।আপনি চাইলে হাতের ছট খাটো কাজগুলো সেরে নিতে পারেন।ছবি দেখুন।

কাজ শেষ।আপনি ফিনিস এ ক্লিক করলে কিছুক্ষন ক্যাঁ কু করে আপনাকে জানাবে লাইসেন্স সঠিক নয়।রাগ করবেন না কারন ব্যাটা সত্যি কথাই বলেছে। আপনি যদি পারেন (কি)জেনটি মাউস দিয়ে টেনে নিয়ে ডেস্কটপে রেখে দিন এতে কাজের সুবিধা হবে।এবার (কি)জেনটি run as administrator দিয়ে চালু করুন এবং patch লেখাতে ক্লিক করুন। successfully patched লেখা আসলে বুঝবেন আপনি সফল হয়েছেন।আপনার যদি UAC  বন্ধ না রাখেন তবে প্যাচ কখনোই কাজ করবে না।সেক্ষেত্রে অংক শেষে ফলাফল ০ হবে।ছবি দেখুন।

এবার active লেখাতে ক্লিক করুন।নীচের মত একটা পেজ আসবে। close এ ক্লিক করুন।ছবি দেখুন।

এবার আপনাকে নীচের মত একটা পেজ শো করবে।আপনার করনীয় হলো

১ নং থেকে কপি করে

২ নং এ পেষ্ট করুন

৩ নং এ ক্লিক করে

৪ নং থেকে কপি করে

৫ নং এ উপরে বাম কোনের ঘরে মাউস রেখে পেষ্ট করুন।অটোমেটিক সব ঘরে নাম্বার পৌছে যাবে।

৬ নং এ next ক্লিক করলে

যারা এত প্যাচ বোঝেন না তারা ২০১৫ ভার্সনে আমার একটা টিউটোরিয়াল আছে সেটা নীচে দিলাম।ওটা দেখে দেখে করে ফেলুন।নিয়ম ১০০% এক।

ভাইরে সফটওয়্যার কোম্পানীও তো আপনাকে এত সুন্দর করে বুঝিয়ে দিবে না যে ভাবে আমি দিলাম। ;-)

topaz glow (x64) ফটোশপ প্লাগইন

ফটোশপ পিয়াসীদের জন্য একতা পছন্দের প্লাগইন হতে পারে।আপনার যে কোন ছবিকে ইল্যুমিনেট এবং বিভিন্ন ভাবে বদলে দিতে পারে।সিলেক্ট করে নিন আপনার পছন্দের ক্যাটাগরীর ছবিটি এবং সেটাতে ম্যানুয়ালী সিলেক্ট করে নিন রং,আলো ইত্যাদি।বিস্তারীত জানতে এখানে ক্লিক করুন।

যারা ডাউনলোডে আগ্রহী তারা নামিয়ে নিতে পারেন মাত্র ৪০ মেগাবাইটের এই প্লাগইনটি।

ডাউনলোড

বাড়তি কথার কিছু নেই,স্বাভাবীক ইন্সটল করে যখন (সি)রিয়াল চাইবে নোটপ্যাডে যা দেয়া আছে তা কপি করে পেষ্ট করুন।

dxo viewpoint 2  x64/x32(Adobe Photoshop, Lightroom, Elements)

ফটোশপ,লাইট্রুম এলিমেন্টস প্লাগইনস।বিস্তারীত জানতে এখানে ক্লিক করুন। এর সূক্ষ কাজগুলো যারা এক্সপার্ট তারাই ভালো বুঝবেন।ইংলিশে ট্রান্সলেট করে বুঝালেও হয়ত ভালো বুঝাতে পারবো না।

যারা আগ্রহী তারা নামিয়ে নিতে পারেন ৯২ মেগাবাইটের এই সুন্দর প্লাগইনটি।

ডাউনলোড

(প্যা)চ ফাইলটি /c drive/programs/dxo labs/DxO ViewPoint 2 ফোল্ডারে ঢুকিয়ে ক্লিক করুন।কাজ শেষ।

dxo optics pro 10

বুঝতে পারছি না এটি ফটোশপ প্লাগইন কি না ।খুঁজলাম কিন্তু কোন ইনফো পেলাম না।তবে বলাই বাহুল্য ঝাক্কাস একটা সফটওয়্যক্সার ফট নিয়ে নাড়াচাড়া করার।বিস্তারীর তথ্যের জন্য এখানে ক্লিক করে দেখে আসতে পারেন।যারা ডাউনলোডে আগ্রহী তারা নামিয়ে নিতে পারেন ৩২২ মেগাবাইটের এই সফটওয়্যারটি নীচের লিঙ্ক থেকে।

ডাউনলোড

ফুল ভার্সন করার নিয়ম উপরেরটার মতই।(প্যা)চ ফাইলটি /c drive/programs/dxo labs/DxO optics pro ফোল্ডারে ঢুকিয়ে ক্লিক করুন।কাজ শেষ।

আজ এই পর্যন্তই।ডাউনলোড করতে কোন অসুবিধা হলে জানাবেন।সমস্যা হলে অন্য কোন ডালে আগামীতে বাসা বাঁধবো। ভালো থাকবেন সবাই >||| আল্লাহ হাফেজ |||

Previous
Next Post »

পোস্ট সম্পর্কিত সমস্যার জন্য মন্তব্য দিন।ডাউনলোড লিঙ্ক এ সমস্যা জন্য ইনবক্স করুন Aimzworld007
ConversionConversion EmoticonEmoticon

Thanks for your comment